স্টাফ রিপোর্টারঃ কালিগঞ্জে পল্লীতে সরকারী সম্পত্তি জবরদখল করে বহুতলা ভবন নির্মানের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি উপজেলার বাঁশতলা বাজার সংলগ্নে কার্পেটিং সড়কের পাশে ঘটেছে। স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে, দক্ষীন শ্রীপুর ইউপি সদস্য, ফতেপুর গ্রামের মৃত ছামসুর রহমান মেম্বরের পুত্র কামালউদ্দীনের নেতৃত্বে খাস সম্পত্তি দখল করে নায়েব নন্দ বাবু’র যোগসাজসে দুইতলা ভবন নির্মান কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। শ্রম আইনের তোয়াক্কা না করে শুক্রবারেও রাজমিস্ত্রি ও শ্রমজীবিদের ভয়ভীতি দেখিয়ে সারাদিন সেন্টারিং কাজ করিয়েছে। স্থানীয় আওয়ামী যুবলীগের সেক্রেটারী জাকারিয়া হোসেন জাকির জানান, সম্পুর্ণ পেশীশক্তির জোরে অবৈধভাবে দলীয় পরিচয় আর পেটুয়া বাহিনীর ভয় দেখিয়ে ফতেপুর মৌজার ৩৪৪ ও ৩৪৬ খতিয়ানের বিএস ১/১ খতিয়ানের ১৪১৭ দাগের মোট জমির মধ্যে সরকারী ১১ শতাংশ জমি জবরদখল করে তার উপরে আবার বহুতল ভবন নির্মান করছে। কামাল হোসেন মেম্বর, ওয়াহেদুজ্জামান ডাবলু জলিল সরদার গংদের সহযোগীতায় এমনিভাবে নদীর চর, জড়ক ও জনপথের যায়গা দখল করে অনেক সম্পত্তির মালিকবনে গেছে। এক্ষুনী তাদের পরসম্পদলোভীর লাগাম টেনে না ধরলে অনেক সরকারি সম্পত্তি বেদখল হবে বলে জানান। এদিকে বাঁশতলা বাজার ব্যবসায়ীরা বাদী হয়ে সরকারী সম্পত্তিতে বিনা অনুমতিতে ব্যাক্তিগত পাকা স্থাপনা নির্মান কাজ বন্ধের দাবীতে আবেদন করেছে।